Khabar Aajkal

মালদাঃ গৃহবধূকে খুনের অভিযোগ স্বামীসহ শ্বশুরবাড়ির লোকেদের বিরুদ্ধে।।
Spread the love

মালদাঃ গৃহবধূকে খুনের অভিযোগ স্বামীসহ শ্বশুরবাড়ির লোকেদের বিরুদ্ধে।।


এক গৃহবধূকে খুনের অভিযোগ উঠল স্বামীসহ শ্বশুরবাড়ির লোকেদের বিরুদ্ধে। ঘটনায় গৃহবধূ বাবার বাড়ির লোকজন শ্বশুর বাড়িতে পৌঁছলে তাদের কেও বেধড়ক মারধর করা হয় বলে অভিযোগ। ঘটনা ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে মালদা গাজোল থানার জামতলা এলাকায়। ঘটনার পর থেকে এলাকা ছেড়ে বেপাত্তা অভিযুক্ত স্বামী।।

ন্যায় বিচারের দাবিতে গাজোল থানার পুলিশের কাছে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে মৃত গৃহবধূর আক্রান্ত পরিবার বর্গ। জানা যায়, মৃত গৃহবধূর নাম সায়েবা সাবনাম। অভিযুক্ত স্বামী দিলওয়ার হোসেন এবং শশুর আব্দুল করিম শেখ শাশুড়ি মনজেরা বিবি।।

পরিবার সূত্রে জানা গেছে প্রায় আড়াই বছর আগে দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার হরিরামপুর থানার করঞ্জা বাড়ি এলাকার মেয়ে সায়েবা সাবনামের সামাজিক ভাবে বিবাহ হয় গাজোল থানার জামতলা এলাকার বাসিন্দা দিলওয়ার হোসেনের সাথে।বর্তমানে তাদের একটি পুত্র সন্তান রয়েছে।।

যদিও পরিবারের লোক বিয়ের পর জানতে পারে স্বামী পরকীয়া সম্পর্কে জড়িত রয়েছে। পাশাপাশি বিয়ের যৌতুক নিয়ে গৃহবধূর ওপর চাপ সৃষ্টি করা হতো বলে অভিযোগ।।

বুধবার মেয়ের বাবার বাড়িতে মোবাইল মারফত জানানো হয় গৃহবধূর মৃত্যুর কথা। পরিবারের লোকজন ছুটে আসলে গৃহবধূকে ঘরেই মৃত অবস্থায় দেখে খুনের অভিযোগ তোলেন পরিজনরা। জামাই পলাতক থাকায় সেই সন্দেহ আরো বেড়ে যায় মৃতার পরিবারবর্গের।।

এই পরিস্থিতে খুনের অভিযোগ তুলে মৃত গৃহবধূর আত্মীয়রা চাপ সৃষ্টি করলে গৃহবধূর বাবার বাড়ির লোকেদের উপর আক্রমণ চালায় শশুর সহ তার আত্মীয়রা। ঘটনায় মৃত বধূর বাবা মফিজুর রহমান,দাদা ফারজাল ইসলাম,ভাই কামরূপ জামান দের ওপর হামলা করে মাথা ফাটিয়ে দেওয়া হয় এবং গুরুতর আঘাত করা হয়।।

যদিও মৃত গৃহবধূর আক্রান্ত পরিবারবর্গের অভিযোগ, এই পরিস্থিতিতে পুলিশের দ্বারস্থ হয় তারা। অন্যদিকে মৃত গৃহবধূর দেহ গাজোল থানার পুলিশ উদ্ধার করে বৃহস্পতিবার ময়নাতদন্তের জন্য মালদা মেডিকেল কলেজ এন্ড হাসপাতালের মর্গে পাঠায়। ঘটনায় স্বামীসহ শ্বশুরবাড়ির লোকেদের বিরুদ্ধে খুনের অভিযোগ থানায় দায়ের করেছে মৃতার পরিজনরা। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে মালদা গাজোল থানার পুলিশ।।

🔴রিপোর্ট – হক জাফর ইমাম।। মালদা।।


Spread the love
author

Related Articles